উপাচার্যের পদত্যাগ ও পুনঃতফসিলের দাবি ছাত্র ইউনিয়নের

30

ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয় কেন্দ্রীয় ছাত্র সংসদ (ডাকসু) নির্বাচনে বিশ্ববিদ্যালয়ের আবাসিক হলের কেন্দ্রগুলোতে ব্যাপক অনিয়ম, কারচুপি ও নজিরবিহীন ভোট জালিয়াতির দায় নিয়ে উপাচার্য’র পদ থেকে ড. আখতারউজ্জামানকে পদত্যাগের দাবি জানিয়েছে ছাত্র ইউনিয়ন।

মঙ্গলবার (১২ মার্চ) ছাত্র ইউনিয়নের সভাপতি জি এম জিলানী শুভ ও সাধারণ সম্পাদক লিটন নন্দীর এক যৌথ বিবৃতিতে এই দাবি জানান তারা।

বিবৃতিতে নির্বাচন বাতিল করে অবিলম্বে কেন্দ্রিয় ছাত্র সংসদ নির্বাচন ও হল সংসদ নির্বাচনের পুনঃতফসিল ঘোষনার দাবি জানিয়েছে সংগঠনটি।

ঢাবি প্রশাসন বিশ্ববিদ্যালয়ের গণতান্ত্রিক ঐতিহ্য ও মূল্যবোধের যে কবর রচনা করতে চেয়েছে তা ছাত্র সমাজ প্রত্যাখান করেছে বলে মন্তব্য করেন তারা।

নেতৃবৃন্দ বলেন, হলে হলে ভোটকেন্দ্র স্থাপিত হলে ব্যাপক অনিয়ম ও আশংকা থেকে প্রগতিশীল ছাত্র ঐক্য ও অপরাপর ছাত্র সংগঠনসমূহ প্রথম থেকেই একডেমিক ভবনে ভোট কেন্দ্র স্থাপনের দাবী জানিয়ে আসলেও একটি বিশেষ ছাত্র সংগঠনকে বিশেষ সুবিধা দেয়ার উদ্দেশ্যে বিশ্ববিদ্যালয় প্রশাসন সংখ্যাগরিষ্ঠের মতকে প্রাধান্য না দিয়ে হলের ভেতরেই ভোট কেন্দ্র স্থাপনের সিদ্ধান্তে অনড় থাকে এবং হলে হলে ব্যাপক অনিয়ম ও কারচুপির মধ্য দিয়ে ছাত্র জোটের যে আশংকা সেটিই বাস্তবে রুপ নিল।

তারা বলেন, ছাত্র সংগঠনগুলোর দাবীকে এড়িয়ে, হলে ভোট কেন্দ্র স্থাপনের মধ্য দিয়ে যে নজিরবিহীন কারচুপির দৃষ্টান্ত স্থাপিত হলো তাঁর দায় কোনভাবেই বিশ্ববিদ্যালয়ের উপাচার্য এড়াতে পারেন না। নির্বাচনে কারচুপির দায় স্বীকার করে অবিলম্বে উপাচার্যকে তাঁর পদ থেকে পদত্যাগ করতে হবে।

এসময় হুশিয়ারি প্রকাশ করে নেতৃবৃন্দ বলেন, নির্বাচনে কারচুপির দায় স্বীকার করে অবিলম্বে উপাচার্যকে তাঁর পদ থেকে পদত্যাগ করতে হবে। নাহলে ছাত্র ইউনিয়ন তাঁর ঐতিহাসিক দায়িত্ব থেকে ছাত্র সমাজকে সাথে নিয়ে তাঁর করনীয় পালন করে যাবে।

একই সাথে প্রহসনের এই নির্বাচন বাতিল করে, অবিলম্বে পুনঃতফসিল ঘোষনার দাবী জানিয়ে নেতৃবৃন্দ আরো বলেন সকাল থেকে বিভিন্ন হলে অনিয়মের প্রমান পাওয়ার পর প্রগতিশীল ছাত্র ঐক্য সহ অন্যান্য সকল প্যানেলের ভোট বর্জনের ঘোষনায় ছাত্র সমাজের যে অভূতপূর্ব সাড়া তার পরিপ্রেক্ষিতে অবিলম্বে এই নির্বাচন বাতিল করা ছাড়া প্রশাসনের সামনে আর কোন পথ খোলা নেই এবং কারচুপি, ভোট জালিয়াতি এবং প্রহসনের এই নির্বাচন বাতিল করে অবিলম্বে ডাকসু এবং হল সংসদ নির্বাচনের পুনঃতফসিল ঘোষনা করতে হবে।